Connect with us

নিউইয়র্ক

২ বছরে নিউইয়র্কে ২ লাখ অভিবাসীর অনুপ্রবেশ

Published

on

আগামী নভেম্বরে অনুষ্ঠিতব্য প্রেসিডেন্টশিয়াল নির্বাচনের আগে মেক্সিকো সীমান্ত নিয়ে কঠোর অবস্থান নিলেন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। অবৈধভাবে অভিবাসন প্রত্যাশীদের ঢুকতে দেয়া হবে না যুক্তরাষ্ট্রে। গত ৪ জুন মঙ্গলবার বাইডেন যে অর্ডারটিতে সই করেছেন, তাতে বলা হয়েছে, মেক্সিকো সীমান্তে দৈনিক ২৫০০ হাজারের বেশি অবৈধ অনুপ্রবেশকারী গ্রেপ্তার হলে সীমান্ত অভিবাসন প্রত্যাশীদের জন্য বন্ধ করে দেয়া হবে। যেহেতু এই মুহূর্তে সংখ্যাটি এর চেয়ে বেশি, ফলে অর্ডার সই হওয়ার পরেই সীমান্ত সিল করে দেয়া হয়। অর্থাৎ, অভিবাসন প্রত্যাশীরা মেক্সিকো সীমান্ত দিয়ে প্রবেশ করতে পারবেন না।

অর্ডারে বলা হয়েছে, কেউ অনুপ্রবেশ করলে সঙ্গে সঙ্গে তাকে ডিপোর্ট করার অর্থাৎ, মেক্সিকোয় ফিরিয়ে দেয়ার ব্যবস্থা করতে হবে। যুক্তরাষ্ট্রে তাকে কোনোরকম ইমিউনিটি বা সুযোগ দেয়া হবে না। সীমান্তে গ্রেপ্তারের সংখ্যা দেড় হাজারের নিচে নামলে ফের এই অর্ডার বদল করা হবে বলে জানানো হয়েছে। তবে অভিভাবকহীন নাবালকেরা অবশ্য এই আইনের অন্তর্গত নয়। তিনি বলেন, তবে পরিকল্পনা করে নিয়ম মেনে কেউ শরণার্থী হওয়ার আবেদন করতে পারেন। কিন্তু অবৈধভাবে অনুপ্রবেশ করা যাবে না। এদিন এই অর্ডারে সই করে হোয়াইট হাউসে বাইডেন বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্রের সীমান্ত সুরক্ষিত করতে তিনি আজ যে সিদ্ধান্ত নিয়েছেন, রিপাবলিকানরা আজ অবধি তা নিয়ে উঠতে পারেননি। তিনি আরও বলেন, যুক্তরাষ্ট্রকে সুরক্ষিত রাখা তাদের কর্তব্য।’ উল্লেখ্য যুক্তরাষ্ট্রের সাথে মেক্সিকোর এক হাজার ৯০০ মাইলের সীমান্ত। বাইডেনের আমলে এই সীমান্ত দিয়ে রেকর্ড সংখ্যায় অনুপ্রবেশ ঘটেছে। ডিসেম্বরে দৈনিক অনুপ্রবেশের সংখ্যা ছিল দশ হাজার। গত কয়েক মাসে সেই সংখ্যা কমলেও অনুপ্রবেশ বন্ধ হয়নি। সম্প্রতি জনমত সমীক্ষায় দেখা গেছে, নির্বাচনে এই অবৈধ অনুপ্রবেশ বাইডেনের বিপক্ষে জনমত তৈরি করছে। তারপরেই এই কঠোর সিদ্ধান্ত নেয়া হলো বলে রাজনৈতিক মহল মনে করছে।

এদিকে নিউইয়র্কে গত ২ বছরে প্রায় ২ লাখের বেশি অভিবাসীর অনুপ্রবেশ ঘটেছে। যার মধ্যে প্রায় ৬৫ হাজার অভিবাসী সিটির দায়িত্বে রয়েছে। মঙ্গলবার এক বিৃবতিতে মেয়র এরিক অ্যডামস বলেন, গত ২ বছরে যুক্তরাষ্ট্রের অন্য রাজ্যগুলোর চেয়ে নিউইয়র্কে অভিবাসীদের ঢল সবচেয়ে বেশি নেমে আসে। প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের আমেরিকা ও মেক্সিকোর দক্ষিণ সীমান্ত অভিবাসীদের প্রবেশ সীমিত করার নির্বাহী পদক্ষেপের পর এমন বক্তব্য দেন তিনি। মেয়র অফিসের তথ্য অনুসারে এই সপ্তাহে নিউইয়র্কে ১২০০ অভিবাসী এসেছে। সিটি কর্মকর্তারা জানান, ফেডারেল সরকারের কাছে অভিবাসীদের সংকট মোকাবেলায় জাতীয় সমাধানের আহ্বান করা হয়েছে। এদিকে যুক্তরাষ্ট্রের কাছে নিরাপত্তা চাওয়া মানুষদের বাধা দেওয়ায় প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের এই নির্বাহী আদেশকে নিষ্ঠুর এবং বেপরোয়া বলে অভিহিত করেছেন অভিবাসী আইনজীবীরা।

Advertisement
Comments
Advertisement

Trending